প্রেমিকার বিয়ে হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীর ভুল সিদ্ধান্ত

প্রেমিকার বিয়ে হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীর ভুল সিদ্ধান্ত, টাঙ্গাইলের মধুপুরে প্রেমিকার বিয়ে হয়ে যাওয়ায়

ক্ষোভে আত্মহত‌্যা করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ‌্যালয়ের ছাত্র প্রীতম কুমার আকাশ (২১)।

তিনি ঢা‌বির চারুকলা বিভাগের সম্মানের শিক্ষার্থী ও মধুপুর পৌরসভার উত্তম কুমারের ছেলে।

আরও খবর পেতে ভিজিট করুউঃ distonews.com

প্রেমিকার বিয়ে হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীর ভুল সিদ্ধান্ত

র‌বিবার (৬ ফেব্রুয়া‌রি) ভোররাতে উন্নত চি‌কিৎসার জন‌্য ময়মন‌সিংহ মে‌ডি‌ক্যাল কলে‌জ হাসপাতালে

নেওয়ার পথে তাঁর মৃত‌্যু হয়। করোনাকালে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় তিনি বাড়িতে অবস্থান করছিলেন।

জানা যায়, প্রীতমের সঙ্গে টাঙ্গাই‌ল কুমু‌দিনী ম‌হিলা কলেজের এক ছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সম্প্রতি

ওই ছাত্রীর অ‌ন‌্যত্র বয়ে হয়ে যায়। এতে বিষপান করেন প্রীতম। পরে অসুস্থ‌ হয়ে পড়লে প্রথমে মধুপুর

উপজেলা স্বাস্থ‌্য কমপ্লেক্সে ভ‌র্তি ক‌রা হয়। সেখানে তাঁর শা‌রীরিক অবস্থার অবন‌তি হলে উন্নত চি‌কিৎসার

জন‌্য ময়মন‌সিংহ মে‌ডি‌ক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তাঁর মৃত‌্যু হয়।

মধুপুর পৌরসভার কাউন্সিলর বাবলু আকন্দ কালের

কণ্ঠকে আত্মহত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘খবর শুনে আমি প্রীতমদের বাড়িতে গিয়েছিলাম। জানতে পেরেছি

ওর এক আত্মীয় মেয়ের সঙ্গে প্রেম ছিল। সেই মেয়েটির বিয়ে হয়ে যাওয়ার কারণে প্রীতম আত্মহত‌্যা করেছে।

ঘটনাটি অত্যন্ত দুঃখজনক। মধুপুর থানার ওসি (তদন্ত) মুরাদ হোসেন বলেন, ‘আত্মহত্যার বিষয়টি শুনেছি। খোঁজখবর নিচ্ছি। তবে এ ব্যাপারে থানায় কেউ অভিযোগ করেনি

গত ২৮ জানুয়ারি ভোটগ্রহণের পরদিন ঘোষিত ফলে সভাপতি পদে ইলিয়াস কাঞ্চনকে এবং সাধারণ সম্পাদক পদে জায়েদকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। ঘোষিত ফলে দেখা যায়, নিপুণ আক্তারের চেয়ে ১৩ ভোট বেশি পেয়ে বিএফডিসির

সাধারণ সম্পাদক পদে জয় পান জায়েদ খান

নির্বাচনের সময়ই টাকা দিয়ে ভোট কেনার অভিযোগ করেছিলেন নিপুণ। তাতে সাড়া না পেয়ে তিনি আপিল করেন। তাঁর আপিলে ভোট পুনর্গণনার পর ফল একই থাকে। এরপর নিপুণ সংবাদ সম্মেলন করে নির্বাচনে জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ভোট কেনার অভিযোগ তোলেন। পরে নির্বাচনী আপিল বোর্ডে জায়েদ খান ও কার্যকরী পরিষদের সদস্য চুন্নুর পদ বাতিলের আবেদন করেন তিনি।

প্রেমিকার বিয়ে হওয়ায় ঢাবি শিক্ষার্থীর ভুল সিদ্ধান্ত

তাঁর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ে করণীয় জানতে আবেদন করেন আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান সোহানুর রহমান সোহান। সে আবেদনের প্রেক্ষিতে গত ২ ফেব্রুয়ারি সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো এক চিঠিতে আপিল বোর্ডকেই এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার নির্দেশনা দেওয়া হলে গত শনিবার দুই পক্ষকে নিয়ে বসার উদ্যোগ নেন সোহান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.